আর ইউ অ্যাফ্রেড অভ দ্য ডার্ক? - সিডনি শেলডন / অনীশ দাস অপু Are You Afraid OfThe Dark Sidney Sheldon/Anish Das Apu || Super HQ

বইটা শুরু হল ৪টি বিচ্ছিন্ন ঘটনা দিয়ে। এগুলো কি আসলেই বিচ্ছিন্ন ঘটনা? নাকি এদের মধ্যে কোন সম্পর্ক আছে? বার্লিনে নিজের অ্যাপার্টমেন্টে মারা গেলো সোনজা ভারব্রুগ। পুলিশ কোন সূত্র খুঁজে পেলো না। কলোরাডোতে প্লেন নিয়ে নামার সময় প্রবল ঘূর্ণিঝড়ের মধ্যে পড়ে মারা গেলো গ্যারি রেনল্ডস। অথচ কন্ট্রোল টাওয়ারের ভাষ্যমতে ঘূর্ণিঝড় তো দূরের কথা, জোর বাতাসের কোন চিহ্নও ছিল না। নিউইয়র্কে মারা গেলো রিচার্ড স্টিভেনস। তার লাশ পাওয়া গেলো নদীতে। রিচার্ড স্টিভেনসের স্ত্রী ডিয়ানে স্টিভেনস এক হত্যা মামলার প্রধান সাক্ষী যার আসামি এক মাফিয়া প্রধান। পুলিশের ধারণা হল সাক্ষীর মুখ বন্ধ করার জন্যই এ হত্যাকাণ্ড। প্যারিসে আইফেল টাওয়ারের ফুটপাথে পাওয়া গেলো মার্ক হ্যারিসের লাশ। মাথার খুলি ভাঙা। আইফেল টাওয়ার থেকে পড়ার পরে না, পড়ার আগেই মৃত্যু ঘটেছে তার। মৃত্যুগুলো কি শুধুই দুর্ঘটনা? নাকি এর পিছনে কোন রহস্য লুকিয়ে আছে? চারজন ভিকটিমের মধ্যে কোন মিল নেই। শুধু একটা ছাড়া। তারা চারজনই কিংসলে ইন্টারন্যাশনাল গ্রুপের কর্মচারী। কিংসলে ইন্টারন্যাশনাল গ্রুপ এমন একটা জিনিস আবিস্কার করেছে যার ফলে সারা দুনিয়ার সকল হিসাবনিকাশ বদলে যাবে। বদলে যাবে সুপারপাওয়ার সংক্রান্ত সকল সমীকরণ। কিন্তু তার সাথে ৪ জনের মৃত্যুর সম্পর্ক কি? সিডনী শেলডনের লেখা নিয়ে নতুন করে বলার কিছু নেই। মাস্টারমাইন্ড স্টোরিটেলার। থ্রিলার বইয়ে এতো দ্রুত ঘটনা ঘটে যে চরিত্ররা সাধারণত পূর্ণতা পায় না, কিন্তু সিডনী শেলডনের লেখার বৈশিষ্ট্যই হল ঘটনার সাথে সাথে চরিত্রেরও নিখুঁত চিত্রায়ণ করা। বইয়ের গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রগুলো যেমন বিস্তৃতি পেয়েছে, অগুরুত্বপূর্ণ চরিত্রগুলো সম্পর্কে যেটুকু না জানালেই নয় তা বলেই লেখক অন্য প্রসঙ্গে চলে গেছেন। লেখকের দুর্দান্ত লেখনিতে উঠে এসেছে শিল্পের প্রতি ডিয়ানের তীব্র অনুরাগ, কেলির শৈশবের ক্লেদাক্ত অতীত, ক্ষমতালিপ্সু ট্যানার কিংসলের পুরো দুনিয়াকে হাতের মুঠোতে নেওয়ার তীব্র ইচ্ছা। সাথে আছে রেসিংকার গতির এক কাহিনী। সুখপাঠ্য এক বই হতে আর কি লাগে!!! কিংসলে ইন্টারন্যাশনাল গ্রুপের চেয়ারম্যান ট্যানার কিংসলের আমন্ত্রণে প্যারিস থেকে আমেরিকাতে আসলো মার্ক হ্যারিসের স্ত্রী কেলি হ্যারিস। ঘটনাচক্রে পরিচয় হল ডিয়ানে স্টিভেনসের সাথে। তারপরই শুরু হয়ে গেলো হামলা। কেউ একজন চাচ্ছে না কেলি আর ডিয়ানে বেঁচে থাকুক। বাঁচার জন্য পুরো আমেরিকা দৌড়ে বেড়াতে লাগলো কেলি আর ডিয়ানে। নিজেদের বুদ্ধি দিয়ে ফাঁকি দিতে লাগলো হামলাকারীদের বারবার। কিন্তু শেষ পর্যন্ত তারা বাঁচতে পারবে তো?

আর ইউ অ্যাফ্রেড অভ দ্য ডার্ক? - সিডনি শেলডন / অনীশ দাস অপু Are You Afraid Of The Dark Sidney Sheldon/Anish Das Apu || Super HQ




বইয়ের নামঃ আর ইউ অ্যাফ্রেড অভ দ্য ডার্ক?
লেখকঃ সিডনি শেলডন
অনুবাদঃ অনীশ দাস অপু
পৃষ্ঠাঃ ২৮৮
প্রকাশনাঃ অনিন্দ্য প্রকাশ
প্রকাশকালঃ ২০১০
সাইজঃ ১১.৭ মেগাবাইট
রেজুলেশনঃ ৬০০ ডিপিআই




Previous
Next Post »
iklan banner